ec_page_3_3বাংলাদেশের রাজধানী ঢাকায় হিন্দু যুবক বিশ্বজিৎ দাসকে কুপিয়ে খুন করার ঘটনায় ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের ছাত্র সংগঠন ছাত্রলীগের দুই নেতার মৃত্যুদণ্ড ও ৮ জনের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড বহাল রাখলো বাংলাদেশ হাইকোর্ট। এর আগে ২০১২ সালের ৯ই ডিসেম্বর ঘটে যাওয়া এই নির্মম হত্যাকাণ্ডে ৮ জনের মৃত্যুদণ্ড ও ১৩ জনের যাবজ্জীবন কারাদণ্ডের আদেশ দিয়েছিলো দ্রুত বিচারের ট্রাইবুনাল। রবিবার ৬ই আগস্ট বিচারপতি মহম্মদ রুহুল কুদ্দুস ও বিচারপতি ভীষ্মদেব চক্রবর্তীর বেঞ্চ নতুন করে এই রায় শুনিয়েছেন। রায়ে মৃত্যুদণ্ড বহাল রাখা হয়েছে রফিকুল ইসলাম শাকিল ও রাজন তালুকদারের। যে ১১ জনকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ডের সাজা দেওয়া হয়েছে তারা হল-খন্দকার ইউনুস আলী,তারেক বিন জোহর, আলাউদ্দিন, ওবায়েদুল কাদের, ইমরান হোসেন, আজিজুর রহমান, আল আমিন শেখ, রফিকুল ইসলাম, মনিরুল হোক পাভেল, কামরুল হাসান ও মোশারফ হাসান।
২০১২ সালের ৯ই ডিসেম্বর বিএনপি নেতৃত্বাধীন ১২ দলের অবরোধ কর্মসূচি চলাকালীন পুরানো ঢাকার ভিক্টোরিয়া পার্কের সামনে দিনের আলোয় নির্মমভাবে খুন হন বিশ্বজিৎ দাস।